বিশ্বকাপ ফুটবলে গড়াপেটার অভিযোগ!

বিশ্বকাপের আগেই তোলপাড় ফুটবল মহল। অপারেশনেই ধরা পড়ল বিশ্ব ফুটবলের অন্ধকার দিক।

ফিফা বিশ্বকাপের ঠিক আগে গড়াপেটার অন্ধকার দিক এবার প্রকাশ্যে। এক আন্তর্জাতিক প্রচারমাধ্যমের স্টিং অপারেশনে ঘুষ নিতে গিয়ে ধরা পড়লেন বিশ্বকাপের জন্য তালিকাভুক্ত রেফারি। শুধু রেফারি-ই নন, আফ্রিকান ফুটবলের কয়েকজন পদস্থ কর্তাকেও দেখা গেল ঘুষ নিতে।

সব মিলিয়ে বিশ্বকাপের আগেই তোলপাড় ফুটবল মহল। বিশ্বকাপের আগেই আফ্রিকান ফুটবল ফেডারেশনের কয়েক জন পদস্থ কর্তা এবং নামী রেফারিদের মধ্যে একটি স্টিং অপারেশন আয়োজন করে ইংল্যান্ডের এক বিখ্যাত সংবাদমাধ্যম। সেই অপারেশনেই ধরা পড়ল বিশ্ব ফুটবলের অন্ধকার দিক। সেই সংবাদমাধ্যমের দাবি, অধিকাংশ অর্থের বিনিময়ে পক্ষপাতমূলক রেফারিংয়ে রাজি হয়ে যান।

নামী রেফারিদের মধ্যে রয়েছেন কেনিয়ার আদেন র‌্যাঞ্জে মারোয়া। রাশিয়ার আসন্ন বিশ্বকাপে বেশ কিছু ম্যাচ পরিচালনা করার দায়িত্বে রাখা হয়েছিল তাঁকে। আফ্রিকান ফুটবল সংস্থার পক্ষ থেকে তাঁর নাম সুপারিশ করা হয়েছিল বিশ্ব ফুটবলের সর্বোচ্চ নিয়ামক সংস্থার কাছ থেকে। তবে এমন স্টিং অপারেশনে তাঁর কীর্তি ফাঁস হওয়ার পরেই প্রশ্ন উঠে যায়, তিনি কি নিরপেক্ষতা বজায় রেখে রেফারিং করাতে পারবেন? তবে আগেভাগেই অবশ্য ফিফার রেফারির প্যানেল থেকে সরে দাঁড়িয়েছেন।

মারোয়ার পাশাপাশি নাম জড়িয়েছে ফিফা কাউন্সিলের সদস্যকেশি ন্যান্টাকির। যিনি আবার ঘানা ফুটবল সংস্থার সভাপতি। আফ্রিকার পাশাপাশি ফিফাতেও বেশ প্রভাব সম্পন্ন তিনি। ফলে এখন থেকেই প্রশ্ন উঠে গিয়েছে বিশ্বকাপের স্বচ্ছতা নিয়ে। এর আগে দুর্নীতির অভিযোগের জন্য সরে দাঁড়াতে হয়েছিল তৎকালীন ফিফা সভাপতি শেপ ব্লাটারকে।

ফুটবল সংস্থার প্রেসিডেন্ট স্টিং অপারেশনে ধরা পড়ায় ঘানার ফেডারেশন আপাতত ভেঙে দেওয়া হয়েছে।

Be the first to comment

Leave a comment

Your email address will not be published.


*