বেঙ্গালুরুর কাছে হেরে বিপদে হায়দরাবাদ

স্পোর্টস ডেস্ক : সান্ত্বনার জয়ে আইপিএলের এই আসর শেষ করলো রয়্যাল চ্যালেঞ্জার্স বেঙ্গালুরু। তাদের কাছে ৪ উইকেটে হেরে প্লে অফ খেলার আশায় বড় ধাক্কা খেলো সানরাইজার্স হায়দরাবাদ। রবিবার মুম্বাই ইন্ডিয়ান্সের কাছে যেন কলকাতা নাইট রাইডার্স হারে সেই প্রার্থনা করবে গতবারের রানার্স-আপ দল।

১৪ ম্যাচে ১২ পয়েন্ট নিয়ে চার নম্বরেই আছে হায়দরাবাদ। কিন্তু লিগ পর্বের শেষ ম্যাচে মুম্বাইয়ের বিপক্ষে কলকাতা জিতলেই বিদায় নিতে হবে তাদের। এক ম্যাচ কম খেলে ১২ পয়েন্ট নিয়ে পাঁচে কলকাতা। বেঙ্গালুরু এবারের আইপিএলে অর্জন করেছে ১১ পয়েন্ট।

চিন্নাস্বামী স্টেডিয়ামে টস জিতে ফিল্ডিং নেয় স্বাগতিক বেঙ্গালুরু। ব্যাটিংয়ে দারুণ শুরুর পর অধিনায়ক কেন উইলিয়ামসনের অপরাজিত ৭০ রানের কল্যাণে হায়দরাবাদ ৭ উইকেটে করে ১৭৫ রান। লড়াই করার মতো স্কোর তারা বোর্ডে তুললেও শিমরন হেটমায়ার ও গুরকীরাত সিংয়ের হাফসেঞ্চুরিতে হার এড়াতে পারেনি। ১৯.২ ওভারে ৬ উইকেটে ১৭৮ রান করে বেঙ্গালুরু।

ঋদ্ধিমান সাহা ও মার্টিন গাপটিল শুরুতে ঝড় তোলেন। ৪.৩ ওভারে তাদের ৪৬ রানের জুটি ভাঙে ঋদ্ধিমানের (২০) বিদায়ে। গাপটিল ফিরে যান ৩০ রানে। এরপর হায়দরাবাদ দ্রুত কয়েকটি উইকেট হারালে হাল ধরেন উইলিয়ামসন। ৪৩ বলে ৫ চার ও ৪ ছয়ে সাজানো ছিল তার এই ইনিংস। এছাড়া বিজয় শঙ্কর করেন ২৭ রান।

বেঙ্গালুরুর পক্ষে ওয়াশিংটন সুন্দর সর্বোচ্চ ৩ উইকেট নেন। দুটি পান নবদীপ সাইনি।

লক্ষ্যে নেমে ২০ রানে ৩ উইকেট হারিয়ে ধুঁকছিল বেঙ্গালুরু। তবে হেটমায়ার ও গুরকীরাতের ১৪৪ রানের জুটিতে দারুণ জয়ের পথ তৈরি হয়। জয়ের জন্য ১২ রান দূরে থাকতে আউট হন হেটমায়ার। ৪৭ বলে ৪ চার ও ৬ ছয়ে ৭৫ রান করেন উইন্ডিজ ব্যাটসম্যান। গুরকীরাত ৬৫ রানে আউট হন ৪৮ বলে ৮ চার ও ১ ছয় মেরে। শেষ ওভারে দুটি বাউন্ডারিতে দলকে জয়ের বন্দরে পৌঁছে দেন উমেশ যাদব (৯*)।

হায়দরাবাদের পক্ষে খলিল আহমেদ তিনটি ও ভুবনেশ্বর কুমার দুটি উইকেট নেন। ম্যাচসেরা হয়েছেন হেটমায়ার।