ম্যালেরিয়া-ডেঙ্গু থেকে মিলবে মুক্তি এই গাছগুলো ঘরে থাকলে

বর্ষার এই মৌসুমে ডেঙ্গু ও ম্যালেরিয়ার দাপট বেড়ে যায়। সেইসঙ্গে তো মশাবাহিত নানা রোগের প্রোকোপ রয়েছেই। এমন অবস্থায় মশার হাত থেকে রক্ষা পাওয়া একান্ত জরুরি।

তবে রাসায়নিক নানান জিনিস আমাদের শরীরের ক্ষতি করতে পারে। সেক্ষেত্রে আসুন এমন কয়েকটি উদ্ভিদের কথা জেনে নেয়া যাক, যেগুলো ঘরের সৌন্দর্যও বাড়াবে সঙ্গে মশাও দূরে থাকবে-

সিট্রোনেলা ঘাস

মশা দূরে রাখার একটি ভালো উপায়। এই ঘাস থেকে নির্গত হওয়া তেল মোমবাতি, পারফিউম, ল্যাম্প ইত্যাদির জিনিস তৈরিতে ব্যবহৃত হয়।

হলুদ গাঁদা ফুল

সবারই নিশ্চয় এই ফুলটি পছন্দের! তবে অনেকেই জানেন না মশারাও এই ফুলের সুগন্ধের কারণে দূরে থাকে। খুব কম লোকই জানেন যে গাঁদা গাছটি দুটি ধরণের হয়। এই দুটির গন্ধই মশা সহ্য করতে পারে না।

তুলসি গাছ

হাজারো রোগের দাওয়াই এই গাছ। জানেন কি? তুলসি মশাকে দূরে রাখতে সাহায্য করে। এছাড়া শরীরকে সুস্থ রাখতেও তুলসির ভূমিকা রয়েছে।

ল্যাভেন্ডার গাছ

মশার শত্রু এই গাছ। মশা দূরে রাখতে এই গাছ সর্বোত্তম বিকল্প হতে পারে। ল্যাভেন্ডার তেল পানিতে মিশিয়ে তা ত্বকে দিয়ে মশার হাত থেকে রক্ষা পাওয়া যেতে পারে।

রোজামেরী ফুল

নীল রঙের এই ফুলও গাঁদা এবং ল্যাভেন্ডারের মতো নিজস্ব উপায়ে মশা দূর করতে সক্ষম। তাই ফুল গাছো মশা থেকে মুক্তির জন্য বাড়িতে লাগাতে পারেন।