বিকেএসপিতে সাকিবের ফেরার লড়াই শুরু

সাকিব আল হাসান
খেলায় ফেরার প্রস্তুতি শুরু হয়ে গেল সাকিব আল হাসানের। বাংলাদেশ ক্রীড়া শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে (বিকেএসপি) শনিবার থেকেই অনুশীলন শুরু করেছেন বাংলাদেশের সেরা ক্রিকেটার। যুক্তরাষ্ট্রে সাড়ে পাঁচ মাস কাটিয়ে বুধবার ভোররাতে দেশে ফেরেন সাকিব। বিমানে চাপার আগে এক দফা করোনাভাইরাস পরীক্ষা করিয়েছিলেন, ফল ছিল নেগেটিভ। দেশে ফিরে আরেক দফা কোভিড-১৯ পরীক্ষা করিয়ে ‘নেগেটিভ’ রিপোর্ট পেয়ে সময়ক্ষেপন করেননি। শুক্রবারই চলে গেছেন বিকেএসপিতে। সেখানে আজ থেকেই শুরু করেছেন ফেরার প্রস্তুতি।

বিকেএসপি সূত্রে জানা গেছে, সকাল সাড়ে ৭টায় বিকেএসপিতে তার শৈশবের কোচ মোহাম্মদ সালাউদ্দিনের অধীনে অনুশীলন করেন সাকিব। রানিং দিয়ে শুরু হয় দিনের কার্যক্রম। প্রাথমিকভাবে এক সপ্তাহের অনুশীলন পরিকল্পনা তৈরির ভার সাকিব ছেড়ে দিয়েছেন সালাউদ্দিনের কাঁধেই। ৪ থেকে ৫ সপ্তাহের আবাসিক প্রশিক্ষণের জন্য সাকিব উঠেছেন সেখানকার ভিআইপি রেস্ট হাউস মধুমতিতে। আগামী ২৯ অক্টোবর নিষেধাজ্ঞা থেকে মুক্তি মিলবে সাকিবের। তবে নিষেধাজ্ঞার সময়ে অনুশীলনের জন্য দৃশ্যত বিসিবির কোনও সুযোগ-সুবিধা নিতে পারবেন না। এজন্য সাকিব অনুশীলন করতে বেছে নিয়েছেন বিকেএসপিকে। বাংলাদেশ দলের শ্রীলঙ্কা সফরের তিন ম্যাচের টেস্ট সিরিজের প্রথমটি আগামী ২৪ অক্টোবর শুরু হওয়ার কথা।

জুয়াড়ির কাছ থেকে অনৈতিক প্রস্তাব পেয়েও তা গোপন করায় গত বছরের ২৮ অক্টোবর তাকে এক বছরের জন্য নিষিদ্ধ ঘোষণা করে আইসিসি। সাকিবের নিষেধাজ্ঞার মেয়াদ শেষ হওয়ার চারদিন আগে শুরু হবে শ্রীলঙ্কা সিরিজের প্রথম টেস্ট। সবকিছু ঠিক থাকলে দ্বিতীয় টেস্ট থেকেই তাকে দলে পাওয়া যেতে পারে। তবে দল শ্রীলঙ্কা সফরে যাওয়ার সময়ও নিষেধাজ্ঞা বহাল থাকবে বলে সাকিবকে দলের সঙ্গী না হয়ে শ্রীলঙ্কা যেতে হবে পৃথকভাবে।